শনিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০৪:২০ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
কুষ্টিয়া কুমারখালীর সদকী সুলতানপুর বাজার এলাকা থেকে ১৭৪ পিস ইয়াবা সহ ১ জন আটক কুষ্টিয়ায় কিশোরী গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু পদ্মা নদীতে ধরা পড়লো ২৮ কেজি ওজনের বাঘাইড় মাছ। মেহেরপুর বারাদীতে ভোক্তা অধিকারের অভিযানে জরিমানা কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে শিক্ষার্থীর মোবাইল সহ কাগজপত্র ছিনতাই মধ্যরাতে বখাটের দ্বারা হেনস্তার শিকার ইবি ছাত্রীরা করোনার সংক্রমণে কুষ্টিয়ার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের অধ্যাপক সাইদুর রহমানের ইন্তেকাল পিলখানা ট্র্যাজেডির দিন আজ প্রেম করে বিয়ের ৬ বছর পরে পরকীয়া প্রেম করে ডিভোর্স না দিয়েই বিয়ে করলেন স্ত্রী, অসহায় স্বামী কুমারখালীতে প্রেমিকাকে যৌন পীড়নের অভিযোগে প্রেমিক গ্রেফতার
কুষ্টিয়ার উজানগ্রামে নিজের ক্রয়কৃত জমি দখল করতে গিয়ে মা সহ ৩ ভাই হামলার শিকার

কুষ্টিয়ার উজানগ্রামে নিজের ক্রয়কৃত জমি দখল করতে গিয়ে মা সহ ৩ ভাই হামলার শিকার

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ কুষ্টিয়া সদর উপজেলার ইবি থানাধীন উজানগ্রাম এলাকার এলাকার হাসান আলীর স্ত্রী জফিরন নেছা (৬০) তার বড় ছেলে মোঃ রবিউল ইসলাম (৪২), মেজো ছেলে মোঃ আলতাফ হোসেন (৩৮) ও ছোট ছেলে আশাদুল ইসলাম (৩০) কে জমির সিমানা দেওয়ার কারনে বেধরক মারপিট করে আহত করেছে একই এলাকার সিরাজুল ইসলামের ছেলে মোঃ নুরুল আমিন, মৃত ভাদু শেখের ছেলে সিরাজুল ইসলাম, মোকাদ্দেসের ছেলে মোঃ মতিয়ার হোসেন,মতিয়ারের ছেলে মোঃ আলমগীর, মতিয়ারের ছেলে ইসমাইল, ওমর আলীর দুই পুত্র ইব্রাহীম ও মুসা। অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, উজানগ্রাম এলাকার হাসান আলীর ৫ ছেলে ১০ বছর আগে একই এলাকার ওমর আলীর নিকট থেকে ১০.৩১ শতক জমি ক্রয় করে কিন্তু জমিটি তাদের দখলে বুঝিয়ে দেয়না। হাসান আলীর ছেলেরা অনেকবার বলার শর্তেও ওমর আলীর ছেলেরা জায়গা বুঝে দিতে সংকোচ বোধ করে এবং খারাপ ব্যবহার করে। এ নিয়ে গত ১০ দিন আগে উজানগ্রাম এলাকার গন্যমান ব্যাক্তিরা উপস্থিত হয়ে উভয় পক্ষের কাগজ দেখে জমি মাপঝোপ করে সিমানা নির্ধারন করে খুটি পুতে দেয়। হঠাৎ করে হাসানের পরিবারের লোকজনেরা দেখতে পারে যে সিমানার খুটি নাই। এ নিয়ে গত ৩০/০১/২০২১ ইং তারিখে আনুমানিক সকাল ৭ টার সময় হাসানের ছেলে রবিউল ইসলাম তার চাচাতো ভাই মতিয়ারের ছেলে আলমগীরকে সিমানার খুটি তুলেছে কে? জিজ্ঞাসা করলে উত্তরে জানিনা বলে। পরবর্তীতে রবিউল নির্ধারিত সিমানায় পুনরায় খুটি পুততে গেলে উপরে উল্লিখিত আসামীরা বিভিন্ন দেশীয় অস্ত্র-সস্ত্রে সজ্জিত হয়ে রবিউল,আলতাফ,আসাদুল ও তাদের মা জফিরন নেছাকে শরীরের বিভিন্ন জায়গায় এলোপাতারী মারপিট রক্তাক্ত জখম করে আহত করে। বর্তমানে রবিউল সহ তার ৩ ভাই ও মা গুরুতর জখম হয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে এবং তাদের অবস্থা আশংকাজনক। এ বিষয়ে কুষ্টিয়া ইবি থানার ওসি বলেন, এ ব্যাপারে উভয় পক্ষ হতে দুটি অভিযোগ দায়ের হয়েছে। তদন্ত চলছে। তদন্তের পর ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।

এই সংবাদটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © swadeshbarta24.com
Design & Developed BY Anamul Haque Rasel