বুধবার, ০৩ মার্চ ২০২১, ০৩:২২ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
এই দেশ কারও বাবার সম্পত্তি নয় : ইশরাক অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের পাশে দাঁড়ালো সামাজিক স্বেচ্ছাসেবি সংগঠন ইয়থ ডেভলপমেন্ট ফোরাম কুষ্টিয়ায় কতৃপক্ষ ঘুমিয়ে, জিকে ক্যানালের জায়গা অবৈধভাবে দখল করে নির্মান হচ্ছে দোকান ‘স্বচ্ছ ও ভালো নিয়ত’ নিয়ে এসেছেন কুষ্টিয়ার নতুন এসপি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ঘেরাওয়ে পুলিশের বাধা, গোটা দেশ অবরোধের হুমকি কুমারখালীর বাঁশগ্রাম কামিল মাদরাসায় কামিল ও ফাযিল পরীক্ষায় অভাবনীয় সফলতা অর্জন কুষ্টিয়ায় দিনে দুপুরে পরের জমির গাছ কেটে নিলো প্রভাবশালীরা ‘আবিষ্কারের নেশায় তিনবার সরকারি চাকরি ছেড়েছি’ কুষ্টিয়ায় হাইওয়ে থানা পুলিশের সফল অভিযান: বিদেশী পিস্তল, গুলি সহ আটক -১ বাঁশ হাতে পুলিশের দিকে তেড়ে যাওয়ার ছবি ভাইরাল
কুষ্টিয়ায় রেলওয়ে ও পৌরসভার দড়ি টানা টানিতে জনগনের গলায় ফাঁস

কুষ্টিয়ায় রেলওয়ে ও পৌরসভার দড়ি টানা টানিতে জনগনের গলায় ফাঁস

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ কুষ্টিয়ায় সড়ক নির্মাণ নিয়ে বাংলাদেশ রেলওয়ে ও কুষ্টিয়া পৌরসভার মধ্যে দড়ি টানা টানি এখন জনগনের গলার ফাঁস হয়ে দাঁড়িয়েছে।শহরের বাবর আলী গেইট থেকে রেললাইনের পাশ দিয়ে কোর্ট স্টেশন পর্যন্ত সড়ক নির্মান নিয়ে উভয়ই মুখোমুখি অবস্থান নিয়েছে।রাস্তাটি উদ্বোধনেই আগেই মাঝপথে থেমে গেছে।ইতোমধ্যেেই এই নির্মাণ খাতে কুষ্টিয়া পৌরসভা ১০কোটি টাকা খরচ করে ফেলেছে। বাংলাদেশ রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ এই রাস্তার প্রবেশ পথের দু’পাশে লোহার বেড়িকেড দিয়ে যাতায়াত বন্ধ করে দিয়েছে।এতে ভোগান্তিতে পড়েছে এলাকার মানুষ।পৌরসভা বলছে এন এস রোডের ভীর কমাতে এই রাস্তার কাজ শুরু করেছে। রেলওয়ে বলছে আমাদের অনুমতি না নিয়েই অপরিকল্পিত ভাবে রাস্তা তৈরীর কাজে হাত দিয়েছে পৌরসভা।এতে ঝুঁকিতে পড়বে রেল লাইন।তবে সরোজমিনে দেখা গেছে ইতোপূর্বে ওখানে একটি ১০ফুট চওড়া ইটের রাস্তা ও পাকা ড্রেন ছিল।বিষয়টি নিয়ে এলাকার মানুষ জেলা প্রশাসকের নিকট মানববন্ধনসহ স্মারকলিপি দিয়েও কাজ হয় নি।।জানা যায় গত বছর কুষ্টিয়া পৌরসভা শহরের বাবর আলী গেইট থেকে কোর্ট ষ্টেশন পর্যন্ত ১৫ ফিট চওড়া আর.সি.সি ঢালাই রাস্তা ও পাকা ড্রেন নির্মান কাজ শুরু করে। রাস্তাটির কাজ বাবর আলী গেইট থেকে শুরু হয়ে কুষ্টিয়া মিউনিসিপ্যাল বাজার পর্যন্ত আসলে বিষয়টি রেলওয়ের উর্দ্ধতন কতৃপক্ষের নজরে আসে। ২০২০সালের ০৬ অক্টোবর বাংলাদেশ রেলওয়ের পাকশী ডিভিশনের এক্সিকিউটিভ ম্যাজিষ্ট্রেট ও ষ্ট্রেট অফিসার মোঃ নুরুজ্জামান কুষ্টিয়া শহরের রেলওয়ের জমিতে গড়ে ওঠা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদে মাঠে নামেন। এ সময় তিনি ঐ এলাকায় অবৈধভাবে গড়ে ওঠা স্থাপনা উচ্ছেদ করেন এবং ভ্রাম্যমান আদালত বসিয়ে অর্থদন্ড আদায় করেন। রেলের পাশে রাস্তা নির্মাণ দেখে তিনি অসন্তোষ প্রকাশ করেন। এর কয়েকদিন পর লোহার ব্যারিকেড দিয়ে রাস্তাটি বন্ধ করে দেয় রেলওয়ে কতৃপক্ষ। বাবর আলী গেইট, মিউনিসিপ্যাল বাজার ও কোর্ট ষ্টেশন এলাকায় মোট তিন জায়গায় লোহার ব্যারিকেড দেয়া হয়। সম্প্রতি দুই কতৃপক্ষের রেষারেষিতে বেড়িকেড আরো মজবুত করা হয়েছে।

এই সংবাদটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © swadeshbarta24.com
Design & Developed BY Anamul Haque Rasel