সোমবার, ১২ এপ্রিল ২০২১, ০৪:১৯ পূর্বাহ্ন

কুষ্টিয়ায় দেশীয় তামাক শিল্প রক্ষার দাবীতে তামাক চাষী কল্যাণ সমিতির অনশন

কুষ্টিয়ায় দেশীয় তামাক শিল্প রক্ষার দাবীতে তামাক চাষী কল্যাণ সমিতির অনশন

নিজস্ব সংবাদ: বিদেশী কোম্পানীর আগ্রাসন থেকে তামাক শিল্প মুক্ত করা ও ন্যায্য মূল্যের দাবিতে কুষ্টিয়া পৌরসভা চত্বরে অনশন কর্মসূচী পালন করেছেন জেলার তামাক চাষীরা। সোমবার সকালে কুষ্টিয়া পৌরসভা চত্বরে দেশীয় তামাক শিল্প রক্ষায় তামাক শিল্পের প্রাণ চাষীদের সুরক্ষা এবং বিদেশী কোম্পানীর আগ্রাসনের হাত থেকে শতভাগ দেশীয় মালিকানাধীন তামাক শিল্পের অস্তিত্ব রক্ষার দাবীতে এ অনশন কর্মসুচী পালন করেছে কুষ্টিয়া জেলা দেশীয় তামাক চাষী কল্যাণ সমিতি। অনশন কর্মসুচীতে জেলার বিভিন্ন উপজেলা থেকে কয়েক শততামাক চাষী যোগ দেন।

অনশনে অংশ নেওয়া তামাকচাষীরা জানান, আগে ২৫-৩০টি দেশীয় কোম্পানী তাদের কাছ থেকে তামাক ক্রয় করত। কিন্তু দুটি বিদেশী কোম্পানীর আগ্রাসনে টিকতে না পেরে অধিকাংশ দেশীয় কোম্পানী পুঁজি হারিয়ে বাজার ছেড়েছে। এই সুযোগে বিদেশী কোম্পানীগুলো ইচ্ছে মত দামে তামাক ক্রয় করছে। এতে ন্যায্য মূল্য থেকে বঞ্চিত হচ্ছে তামাকচাষীরা। তারা এ ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

তামাক চাষীরা আরও বলেন, আমরা গরীব চাষী আজ আমরা তামাক চাষ করতে পারছিনা। কারণ তামাক চাষ করার পর বিক্রির সময় ন্যায়্য মূল্যও দেয়া হচ্ছেনা। দেশে বর্তমানে ২টি বিদেশী কোম্পানী তামাক ক্রয় করে অথচ ১০ বছর আগেও এ দেশে ২৫ থেকে ৩০ টি শতভাগ মালিকানা কোম্পানীর কাছে আমরা তামাক বিক্রি করে লাভবান হয়েছি। বর্তমানে বিএটি নি¤œমানের সিগারেট প্রস্তুত করে তা বাজারজাত করায় দেশীয় মালিকানাধীন কোম্পানী গুলো অস্তিত্ব সংকটে পরেছে। ফলে ওই ২৫টি শিল্প আজ বন্ধের পথে।

তামাক চাষীরা আরো বলেন, দেশীয় কোম্পানী গুলো যদি দেশের মধ্যে ভালো ব্যবসা করতে পারে তা হলে এদেশের অনেক মানুষ ওইসব দেশীয় কোম্পানীতে চাকুরী করতে পারবে এবং দেশের বেকার সমস্যা অনেকটা দুর হবে। দেশের অর্থকারী ফসল সিগারেটটের বাজার থেকে সরকার প্রতিবছর ৪০ হাজার থেকে ৫০ হাজার কোটি টাকা রাজস্ব আদায় করছে। আমাদের দেশের মাটি উর্বর আমরা কৃষি কাজে ফিরে যেতে চাই।
আমরা প্রধানমন্ত্রীর কাছে আকুল আবেদন করছি , আপনি শতভাগ মালিকানাধীন কোম্পানী গুলোকে বাঁচানোর জন্য যে নীতিমালা দিয়েছেন তা বাস্তবায়ন করুন।
অনশন কর্মসুচীতে তামাক চাষীদের রেজিষ্ট্রেশন ভুক্ত করতে হবে, তামাকের ন্যায্য মূল্য দিতে হবে, চাষীদের উৎপাদিত তামাক ক্রয় করে নিতে হবে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কর্তৃক ঘোষনা অনুযায়ী দেশীয় মালিকানাধীন কোম্পানীর জন্য আলাদা নীতিমালা বাস্তবায়ন করা সহ ১৫ দফা দাবী ঘোষনা করেন।

এই সংবাদটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © swadeshbarta24.com
Design & Developed BY Anamul Haque Rasel